জাতীয়

বাংলাদেশের প্রথম পতাকা উত্তোলনের স্মৃতি এখন ম্যুরালে

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, মার্চ ০২- ১৯৭১ সালের এই দিনে পাকিস্তানি শাসনের মধ্যেই প্রথমবারের মতো ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রনেতারা উত্তোলন করেন বাংলাদেশের পতাকা।

ঐতিহাসিক ওই ঘটনা স্মরণীয় করে রাখতে প্রথম পতাকা উত্তোলনের ছবি সম্বলিত ‘সংগ্রামী চেতনা’ নামে একটি মুর‌্যাল কলা ভবনের সামনের দেয়ালে স্থাপন করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে ম্যুরালটি উদ্বোধন করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক। শিল্পী মহসীন কবীরের তৈরি ২৫০ বর্গফুটের টাইলসের এই ম্যুরালটি নির্মাণে অর্থায়ন করেছে অগ্রণী ব্যাংক লিমিটেড।

ম্যুরাল উদ্বোধনের আগে এক আলোচনা সভায় আরেফিন সিদ্দিক বলেন, “স্বাধীনতার এই মাসে মানবতাবিরোধী, যুদ্ধাপরাধী এবং স্বাধীনতাবিরোধীদের বিচার করতে হবে। কারণ ৩০ লাখ শহীদ ও দেশের ১৬ কোটি মানুষ এই বিচার চায়।”

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) সাবেক ভিপি মাহফুজা খানম বলেন, “ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাসের সঙ্গে বাংলাদেশের ইতিহাস একসূত্রে গাঁথা। আমাদের বিভিন্ন আন্দোলনে ছাত্রসমাজের অনেক ভূমিকা রয়েছে।”

জাতীয় পতাকা উৎসবের আহ্বায়ক নাজমুল হোসেন সঞ্চালনায় উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন অগ্রণী ব্যাংক লিমিটেডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. খন্দকার বজলুল হক, মুক্তিযুদ্ধে অন্যতম সহায়তাকারী বিদেশি ফাদার মারিনো রিগান, কলা অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. সদরুল আমিন, সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. ফরিদ উদ্দিন আহমেদ ও অধ্যাপক ড. সৌমিত্র শেখর।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের পর বিশেষ নাটিকা ও আবৃত্তি পরিবেশন করেন সংগঠনের শিল্পীরা। এ সময় একটি বিশাল জাতীয় পতাকা সেলাই করেন আমন্ত্রিত অতিথিরা।

Advertisements

About EUROBDNEWS.COM

Popular Online Newspaper

Discussion

Comments are closed.

%d bloggers like this: